শুক্রবার, ০৫ মার্চ ২০২১, ০৯:৪২ পূর্বাহ্ন

ব্রাজিলে টানা সহস্রাধিক মৃত্যু, আক্রান্ত বেড়ে সাড়ে ২৩ লাখ

ডেস্ক রিপোর্ট
  • Update Time : রবিবার, ২৬ জুলাই, ২০২০
  • ১৭৭ Time View

 

করোনায় বিপর্যস্ত ব্রাজিলে টানা তৃতীয় দিনে সহস্রাধিক প্রাণহানির ঘটনা ঘটেছে। একদিন আগে ১৩শ জনের মৃত্যুর পর গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে ১ হাজার ১৭৮ জনের প্রাণ ঝরেছে করোনায়। এরও আগের দিন মারা গিয়েছিল ১শ জন। ফলে মৃতের সংখ্যা ৮৫ হাজার ৩৮৫ জনে ঠেকেছে।

অপরদিকে, নতুন করে শনাক্ত হয়েছে ৫৮ হাজারের বেশি। ফলে, আক্রান্তের সংখ্যা ২৩ লাখ ৪৮ হাজার ২শ’ জনে দাঁড়িয়েছে। তবে, সুস্থ হয়েছেন অর্ধেকের বেশি রোগী।

বিশ্বখ্যাত জরিপ সংস্থা ওয়ার্ল্ডোমিটারের নিয়মিত পরিসংখ্যানে এ তথ্য জানানো হয়েছে। আক্রান্ত ও প্রাণহানির তালিকায় অনেক চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মী রয়েছেন।

শুধু ব্রাজিলই নয়, গোটা লাতিন আমেরিকার অন্যান্য দেশগুলোও করোনার ভয়াবহতা দেখছে। তবে, পূর্বে তুলনায় দাপট কিছুটা কমতে শুরু করেছে। করোনাকে বাগে আনতে দেশগুলোর সরকার মানুষকে ঘরে রাখতে চেষ্টা করছেন।

কিন্তু অর্থনীতির চাকা সচল থাকা নিয়ে রয়েছে যত দুশ্চিন্তা। ফলে, এমন অবস্থার মধ্যদিয়ে ব্রাজিল, পেরু, চিলি, ইকুয়েডর ও আর্জেন্টিার মতো দেশগুলোতে অনেক কিছুই চালু রয়েছে।

এর মধ্যে ব্রাজিলে সবচেয়ে ভয়াবহ অবস্থা। যা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রকে ছাড়িয়ে যেতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। দেশটিতে আক্রান্তদের চিকিৎসা দিতে গিয়ে বেশ বিপাকে পড়তে হচ্ছে চিকিৎসা কেন্দ্রগুলোকে। অপরদিকে, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা দ্বিতীয় দফায় করোনা আরও ভয়াবহ রূপ নিতে পারে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য ও ইউরোপে ধ্বংসযজ্ঞ চালানোর পর ভাইরাসটির এখন প্রধানকেন্দ্র ব্রাজিল। যা লাতিন আমেরিকার অন্যান্য দেশগুলোতেও ব্যাপক প্রভাব ফেলেছে। যার ভয়াবহতার শিকার পেরু, চিলি ও কলম্বিয়ার মতো দেশগুলো। যার প্রত্যেকটিতে আক্রান্ত দুই লাখ ছাড়িয়েছে।

সংক্রমণের হারে ছয়ে থাকা পেরুতে আক্রান্ত ৩ লাখ ৭৬ হাজারের কাছাকাছি। যেখানে মৃত্যু হয়েছে ১৭ হাজার ৮৪৩ জন মানুষের।

এ অঞ্চলের আরেক ভুক্তভোগী চিলিতেও সংক্রমণ ৩ লাখ ৪১ হাজার ছাড়িয়ে গেছে। এর মধ্যে ৮ হাজার ৯১৪ জনের প্রাণ কেড়েছে করোনা।

কলম্বিয়ায় শনাক্ত হয়েছে ২ লাখ সাড়ে ৩৪ হাজারের বেশি রোগী। এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৭ হাজার ৯৭৫ জনের।

আর্জেন্টিায় সংক্রমিতের সংখ্যা দেড় লাখ পেরিয়েছে। এখন পর্যন্ত সেখানে সংক্রমিতের সংখ্যা ১ লাখ সাড়ে ৫৩ হাজারের বেশি। মৃত্যু হয়েছে ২ হাজার ৮০৭ জনের।

Please Share This Post in Your Social Media

More News Of This Category